Friday, October 13, 2017

অন্ধকারের ছন্দে

ভালবাসতে গিয়ে যদি ফের দেখা হয় কাঠ-ঠোকরার সঙ্গে...?
ঠুকরে দিয়ে যায় পালিয়ে অন্য কারোর বন্ধ জামার গন্ধে ...?

তখন আমি করবটা কি একলা ঘরে একলাপনার ধন্দে!
তার চে বরং একলা থাকি ... একলা নাচি... অন্ধকারের ছন্দে...

Tuesday, September 26, 2017

জেল্লা

চাপ ধরা রক্ত, জল সাবান - এ ধোয়ার পরেও লেগে থাকে মাটি, সিমেন্ট বা লোহার শিকের গায়ে। 
এমন লক্ষ লিটার লাল গায়ে জড়িয়েই দাঁড়িয়ে থাকে তোমার আমার হাই-রাইজিং সংসার।
ছুটির আমেজে ক্লাবহাউসের টলটলে নীল জলে আয়েশে হাত পা ছড়িয়ে থাকতে থাকতে
আজ সকালেই আমি গায়ে মাখলাম আরও খানিক রক্ত। 
মইদুল-সুকুমার-গোপাল ও আরও অনেক এর রক্ত। 

চামড়ায় জেল্লা দেখছ না? 

Monday, September 25, 2017

ঘোর

সেকেন্ড থেকে চলা শুরু, তারপর রাস্তা পেরনো মিনিট আর ঘণ্টার। আরও খানিক পথ হাঁটা ... দিন... সাতদিন... চলতে থাকা...!  চলছি.... নাকি দেখছি... নাকি অনুভব করছি - গুলিয়ে যায় মাঝেমধ্যে! এক মুহূর্তের সাক্ষাত ... আর কয়েক মুহূর্ত কথা।

স্বপ্ন কিম্বা শান্তি নয়... জীবন কবির বোধ ও নয়... মাথার ভেতর হয়ত আমার কোন একটা ঘোর কাজ করে! 
মারণ রোগের মত এসে
জাপটে ধর তীব্র রকম বেগে...
আমার বড্ড একা লাগে।

Tuesday, May 16, 2017

বাড়ন্ত

স্বপ্ন নিয়ে প্রশ্ন কোরো না।
স্বপ্নেরা আজ বাড়ন্ত ...

মাঝরাতে কিংবা একটু-ভোরে আধ-ভাঙা আধ-ডোবা ঘুমের ফাঁক গলে
যেমন তেমন জীবনের আনতাবড়ি মানে-ওলা নানান ছবিরা কাম ও অন্যান্য সুত্রে
বা হয়ত সুতো ছাড়াই এ-ওর সাথে লেপটে গিয়ে এখনও তৈরি করে বেশ কিছু দিশেহারা প্লট।

অল্পখানি ভিত-খোঁড়া মাটির পেটে জল-জড়ানো, পাথর ছড়ানো
এক অদ্ভুত নড়বড়ে শিরদাঁড়ার ওপর যেমন তরতর করে নাকউঁচু বহুতল গজায়
বড় শহরের শহরতলীর বুকে...

ঠিক তেমন ভাবেই দিশেহারা প্লট বেয়ে খেয়ালি পোলাও এর মত
এক আধটা স্বপ্ন চাগিয়ে ওঠার চেষ্টা করে মাঝে মধ্যে।

আর ঘুম ভাঙতেই ডাউন দ্য মেমোরি গ্ল্যান্ডস হাতড়ে
হঠাৎ কখনও মেলে দলা পাকিয়ে থাকা কিছু স্বপ্নের লাশ।

রোজ সকাল এ লাশ ডিঙিয়ে একটা গোটা দিন পেরিয়ে
পরের দিনে মুখ চাওয়া তাও চলছে আজও...

তবু... প্রশ্ন কোরো না !!!
স্বপ্নেরা আজ বাড়ন্ত।